চাকরির নামে প্রতারনা এর শিকার হচ্ছেন না তো!

চাকরি দেয়ার নাম করে পত্রিকায় লোভনীয় বিজ্ঞাপন দিয়ে প্রতিদিন বেকার যুবকদের কাছ থেকে হাতিয়ে নেয়া হচ্ছে প্রচুর অর্থ। আজকে এরকম ২টি ঘটনা তুলে ধরা হবে ডেইলি রেজাল্ট বিডির পাঠকদের জন্য এতে অনেকেই সচেতন হবে।

চাকরির নামে প্রতারনা
আমার এক হাই স্কুল বন্ধুকে একটি চাকরী নিয়ে দিতে বলায় সে LLC নামে একটি কম্পানির কথা বলে।সে নিযেও সেখান চাকুরি করে। তার মাধ্যমে জানতে পারি আ-জিবন থাকা খাওয়া এবং চিকিৎসা খরচ হিসেবে ৫০ হাজার advance দিয়ে আমাকে চাকরি তে যোগ দিতে হবে।

বিশ্বস্ত বন্ধু হয়ায় আগে-পিছে না ভেবে টাকা গুলো ০২/০৭/২০১৮ আজমপুর একটি মার্কেট এর একটা অফিস এ যেয়ে জমা দিয়ে আসি। জমা দেয়ার পর আমার ৪কপি ছবি এবং বাবার ৪কপি ছবি নেয়। আর কিছু কাগজে সাইন করায় যা আমাকে পরার সুযোগ দেয়া হয়না। তার পর ০৪/০৭/২০১৮ বিকেলে আজম পুর তেকে সামান্য পূর্বে রেল লাইনের পাশে তাদের ভারা করা মেসে যেতে বলায় আমি যাই। সেখানে তাদের কিছু পুরনো কর্মির এবং আমার সেই বন্ধুর সাথে দেখা হয়।  টিটু নামের এক লোক সেই মেসের কর্মিদের লিডার।

শিক্ষার সব খবর সবার আগে জানতে DailyResultBD এর ইউটিউব চ্যানেলের সাথেই থাকুন। আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন YouTube Channel নতুন বিকাশ অ্যাপ থেকে নিজের একাউন্ট খুলুন মিনিটেই, শুধুমাত্র জাতীয় পরিচয়পত্র দিয়ে। কোথাও যেতে হবে না! আর অ্যাপ থেকে একাউন্ট খুলে প্রথম লগ ইনে পাবেন ১০০ টাকা ইনস্ট্যান্ট বোনাস!সাথে আছে আরো অ্যাপ অফার: - প্রথম বার ২৫ টাকা রিচার্জে ৫০ টাকা ইনস্ট্যান্ট বোনাস .সর্বমোট ১৫০ টাকা বোনাস পাবেন একজন বিকাশ গ্রাহক। এছাড়া যারা একাউন্ট খুলেছেন তারাও বিকাশ এপ ডাউনলোড করে প্রথম প্রথম লগ ইনে পাবেন ১০০ টাকা ইনস্ট্যান্ট বোনাস! Bkash App Download Link
চাকরির নামে প্রতারনা এর শিকার হচ্ছেন না তো
চাকরির নামে প্রতারনা এর শিকার হচ্ছেন না তো

যাওয়ার পর থেকে আমাকে আর একা রুম থেকে বের হতে দেয় না। কথাও গেলে তাদের একজন কে সাথে দিয়ে দেয়। কারো সাথে যোগা-যোহ করতেই দেয় না। এ ভাবে রাত শেষে পরের দিন ০৫/০৭/২০১৮ বৃহস্পতিবার সকাল ৮টায় ট্রেনিং এর নামে তাদের এক জন কর্মি রেললাইনের পাশে কন্সট্রাকশনের কাজ চলছে এমন একটি মার্কেট এ নিয়ে যায়। ৪র্থ তলায় নির্মানের কাজ চলছে এমন একটি রুমে নিয়ে যায়। সেখানে আমার মত নতুন ১২ জন কে দেখি এবং তাদের প্রত্যেকের সাথে পুরাতন একজন করে কর্মি আছেন।তারদের থেকে জানতে পারি, সবাই ভিন্ন-ভিন্ন পরিমানে টাকা দিয়ে এখানে আসছেন।

চাকরির নামে প্রতারনা এর শিকার হচ্ছেন না তো!

এক বয়ষ্ক লোক সবার সাতে কথা বলেন এবং সেই কোম্পানির MD অনেকখন অপ্রয়োজনীয় কিছু কথা বলেন। ৯:১০am আমাদের চলে যেতে বলা হয় এলোমেলো ভাবে, নতুন কাউকে এক সাথে যেতে দেয়া হয় না। আমার সাথে যাওয়া সেই কর্মির সাথেই আমাকে মেসে ফিরতে হয়। মেসে এসে দেখি সবাই সেই আফিসে যাচ্ছে ট্রেইনিং দেয়ার জন্য।
আমাকে পাহারা দেয়ার জন্য এক জন থাকে। সামান্য কিছু খেয়ে সুয়ে পরি। এভাবে সে দিন চলে যায়।শুক্র বারে কথাও যেতে দেয়নি। শনিবার আবার আমাকে সেখানে নিয়ে যাওয়া হয় পরিচয় না দিয়ে একটা লোক অনেকখন বক্তব্য দেন এবং আগের মতই এলোমেলো ভাবে বের করে দেয়া হয়।
আমার বোঝার আর তখন বাকি থাকে না আমি একটা চক্রের কাছে ফেসে গেছি।

যথারীতি সবাই যখন চলে যায় এবং আমাকে দেখার জন্য যে থাকে সে অন্য রুমে যাওয়ার সাথেই সেখান থেকে পালাই আসি। বুঝতে পারি ট্রেনিং রুমে যাদের সাথে দেখা হয়, সবাই আমার মত ফেসে গেছেন। আমি এতটুকু বুঝতে পারি তাদের মুল কাজ শুধু ট্রেনিং দেয়া। ১০-১৫ দিন ট্রেনিং শেষে ওরা বলে নতুন কর্মি সংগ্রহ করতে এবং তাদের একুই ট্রেনিং দিয়ে আবার তাদের বলা নতুন কর্মি নিয়োগ দিতে।
( My experience)
Md Ekoraj Chowdhury
এই ছেলের মাধ্যমে ওই company তে যাই…এর জন্যই আমার সব টাকা নষ্ট হয়ে গেছে।
( আগে ভালো বন্ধু ছিলো)

প্রতারনার ফাদে নিজেই যখন

চাকরি দেওয়ার নামে Lifeway Bangladeshএরা S.S.C, H.S.C, Degree এবং Masters পাশ এমনকি ডিপ্লোমা ইন্জিনিয়ার, , শিক্ষিত,অশিক্ষিত, বিশেষ করে বেকারদের সাথে প্রতারণা, সিটি ইলেক্ট্রিক & সিরামিক,নোভা, এল জি ইত্যাদি কোম্পানিতে চাকরি দেওয়ার নামে ৫০ থেকে ৩০ হাজার টাকা মিথ্যা জামানত ও মাসে ১০-১৩ হাজার টাকা বেতন, বিভিন্ন জায়গায় সফর করানো,সপ্তাহে ১ দিনবন্ধ সহ, নানা রকম লোভনীয় কথা বলে মানুষ কে প্রতারিত এবং নিস্ব করছে গাজিপুর চোরাস্তায় সহ গাজিপুর বোর্ড বাজার এ অবস্থিত ভুয়া কোম্পানি ” ” লাইফওয়ে বাংলাদেশ। সম্পুর্ন অবৈধ, ভুয়া & প্রতারক এইকোম্পানিটি।

এই কোম্পানির মূল কাজ হচ্ছে লোক জয়েন্ট করানো। সিটি,নোভা,এল জি,এই সব ইলেক্ট্রিক & সিরামিক কোম্পানির কথা বলে সারা দেশের বিভিন্ন গ্রামথেকে মানুষকে মিথ্যা বলে গাজিপুর নিয়ে এসে জিম্মি অবস্থায়রাখা হয়। জীবনের ঝুঁকি নিয়ে থাকে এই সব মানুষ। সর্ট কাটে ধনি হওয়ার বিভিন্ন টেকনিক শেখানো হয় তাদের। আর নানা রকম কাল্পনিক মিথ্যা, বানোয়াট লোভনীয় কথা বার্তা বলে মগজ ধোলাই করা হয় গ্রাম থেকে আসা মানুষদের । কয়েক্টি ট্রেনিং করিয়ে তার পিছনে আরও লোক আনতে বলা হয়।লোক আনতে না পাড়লে, লোক না দিলে কোন বেতন নাই। লোক দিতে পাড়লে কিছু কমিশন দেওয়া হয়।

লোক যদি ৫০ হাজারের হয় ৩ হাজারটাকা, ৪০ হাজারের হলে ২ হাজার টাকা এবং ৩০ হাজারেরহলে ১ হাজার টাকার কমিশন দেওয়া হয়। এই কথা গুলিপরে বলা হয়, আগে বলা হয় না।
গ্রামের অসহায় মানুষ গুলো জমি বন্ধক রেখে/গরু বিক্রি করে/ সুদের টাকা নিয়ে/ কিস্তি থেকে টাকা নিয়ে / টাকা ধার-কর্জ করে চাকরীতে অাসে। এরা জোর পুর্বক পরিচিত মানুষের নাম, পেশা, আয় কত ইত্যাদি সম্পর্কে তালিকা লেখা ওতাদের কাছে ফোন করানো হয়। এখনও বহু মানুষতাদের হাতে জিম্মি অবস্থায় আছে। বাড়ি থেকে কলকরলে বলতে বাধ্য করা হয়, আমি অনেক ভালো
আছি, অনেক সুখে আছি। কেউ কেউ খালি হাতে জীবন নিয়ে পালিয়ে আসে। যে কোম্পানিতে চাকরির কথা বলে নিয়ে যাওয়া হয়, অফিসে গিয়ে দেখে অন্য একটা কোম্পানি ,যা বলা হয়েছে তা নয়, অন্য একটা কোম্পানি ।

যখন কেউ আমি চাকরি করব না এবং টাকার জন্য প্রশ্ন করা হয় তখন তারামাত্র ৮ হাজার টাকার নাম মাত্র বাজে পন্য ধরিয়ে দিয়ে জীবন নাশের হুমকি দিয়ে একটা স্টাম পেপারে সই/
দস্তখত নিয়ে বিদায় করে দেয়। ৩০ হাজারের মধ্য মাত্র ৮ হাজার টাকার খুবই নিম্নমানের পন্য ধরিয়ে দিয়েবাকি টাকা হাতিয়ে নেয় প্রতারক কোম্পানিটি। প্রতারিতব্যক্তিকে জীবনের হুমকি দিয়ে তারিয়ে দিচ্ছে। এই কোম্পানির বিরুদ্ধে অনেক বার বিভিন্ন গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়েছে। মামলাও হয়েছে। তার পরও এই কোম্পানিটি মানুষের সাথে ধোঁকাবাজি করে যাচ্ছে। প্রাশাসনের সামনে ঘটছে এই সব, অথচ তারা
নিরব। স্থানীয় প্রাশাসন কে মেনেজ করে মানুষের
সাথে চলছে দিন দুপুরে এমন ডাকাতি ও ধোঁকাবাজি।

ধ্বংস ও নিস্ব করা হচ্ছে সারা দেশের গরিব দু:খী পরিবার কে। প্রতিদিন শত শত মানুষ প্রতারিত ও সব হারিয়ে নিস্ব হয়ে চোখের জল ফেলছে অসহায় মানুষ। এত বড়
অপরাধ করেও পার পেয়ে যাচ্ছে এই প্রতারক চক্র। এ যেন দেখার কেউ ই নেই।

DailyResultBD এর শিক্ষা সংক্রান্ত সকল তথ্য পেতে আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন YouTube Channel

এদের অফিস যে স্থানে আছে :
১। গাজীপুর বোর্ড বাজার অফি (board bazar office)
২। গাজীপুর চৌরাস্তা
৩। সাভার অফিস
৪। গুলশান অফিস
৫। উত্তরা অফিস
পোস্ট টি ফেসবুক হতে সংগ্রহ করা হয়েছে

Related Content